লারাভেল হচ্ছে সফটওয়্যার ইন্ডাস্ট্রির অন্যতম জনপ্রিয় একটি ডিমান্ডিং জব ক্যাটাগরি। আপনারা যদি ইন্টার্নশিপ এন্ড জবজ ইন বাংলাদেশ ফেজবুক গ্রুপে ব্রাউজ করেন, তাহলে প্রচুর লারাভেল ডেভেলপমেন্ট সংক্রান্ত জব দেখতে পারবেন। আপনাদের মধ্য অনেকে এ জন্যই লারাভেল ডেভেলপমেন্ট শিখতে চান। আগ্রহীদের জন্য আজকের ব্লগ।

যারা একবারে শুরু থেকে, স্কেচ থেকে লারাভেল ডেভেলপমেন্ট শিখতে চান, তাদের জন্য আজকের ব্লগ। যারা ইতিমধ্য লারাভেল এর বেসিক জানেন বা এডভান্স শিখতেছেন, তাদের জন্য এই ব্লগ খুব বেশি সাহায্য করবে না।

লারাভেল ডেভেলপমেন্ট এর কুইক স্টার্ট গাইড এর এই ব্লগটি আমাদের গালিব নোটস চ্যানেল এর ভিডিওর লিখিত ভার্শন। এই ভিডিওতে আমাদের গাইড করেছেন, লারাভেল এর অত্যান্ত জনপ্রিয় একজন ডেভেলপার, কোডিও এর টেকনিক্যাল লিড, ফয়সাল ভাই।

ধনী হওয়ার গোপন মন্ত্র কী? রিচ ড্যাড পুওর ড্যাড বুক রিভিউ

শুরুতে কোডিও সম্পর্কে কিছু তথ্য জেনে নেয়া যায়। কোডিও হচ্ছে ঢাকা বেইজড ফুল ফিচার্ড সফটওয়্যার কোম্পানি যারা ওয়েব এপ্লিকেশন, মোবাইল এপলিকেশন, ইকমার্স সাইট, ইয়ারপি সহ সব ধরনের কাস্টম সফটওয়্যার ডেভেলপমেন্ট এর সার্ভিস প্রভাইড করে থাকে।

এর সাথে সাথে, কোডিও তে লারাভেল ডেভেলপমেন্ট এর উপর নিয়মিত ইন্টার্নশিপ ট্রেইনিং প্রোগ্রাম হয়ে থাকে। এবং ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারদের ইন্ডাস্ট্রিয়াল এটাচমেন্ট এর প্রোগ্রাম হয়ে থাকে। এতে কম্পিউটার সাইন্স এর শিক্ষার্থীরা রিয়েল লাইফ এক্সপেরিয়েন্স অর্জন করে, ইন্ডাস্ট্রি জবের জন্য প্রস্তুত হতে পারে।

লারাভেল এর বেসিক গাইড দিচ্ছেন ফয়সাল ভাই – গালিব নোটস

ব্লগের পরবর্তী অংশ ফয়সাল ভাই এর থেকে বর্ননা করা হয়েছে। শুরুতেই ইন্ট্রডাকশনঃ

হ্যালো এভ্রিওয়ান, আমি তোহিদুল ইসলাম ফয়সাল, কোডিও তে আছি, টেকনিক্যাল লিড হিসাবে। আজকে আমি আপনাদের জন্য একটা ভিডিও তৈরি করছি। এখানে আমি বলব, কিভাবে সহজ ৫টি স্টেপ এ আপনি লারাভেল ডেভেলপমেন্ট শুরু করতে পারেন। খুবই বেসিল লেভে থেকে শুরু করার ব্যাপারে জানাব।

লারাভেল ডেভেলপমেন্ট | শুরু করবেন যেভাবে!

স্টেপ ওয়ানঃ প্ল্যানিং

১ নাম্বার স্টেপে আপনাকে কিছু বিষয় সম্পর্কে জানতে হবে। সেগুলো হচ্ছে প্ল্যানিং। আপনাকে এই স্টেজ এ এসে প্ল্যান করতে হবে যে আপনি ওয়েব ডেভেলপার হতে চান বা লারাভেল ডেভেলপার হতে চান। এখন আপনাকে জানতে হবে, লারাভেল কি, ফ্রেমওয়ার্ক কি, পিএইচপি প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ কি ?

কাজের এনভার্নমেন্ট কি হবে সেটা সম্পর্কে জানতে হবে। ডেভেলপমেন্ট এনভার্নমেন্ট এ কি কি লাগবে, সেই সব বিষয় সম্পর্কে স্টেপ ওয়ান এ আপনাকে আইডিয়া নিতে হবে।

স্টেপ টুঃ প্রিপারেশন

২ নাম্বার স্টেপ এ আপনি প্ল্যানিং অনুযায়ী প্রিপারেশন নিবেন। লারাভেল এর জন্য যে এনভার্নমেন্ট দরকার সেটা সেট করে ফেলবেন। যেমন উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেম এর জন্য কোড এডিটর দরকার, ওয়েব ব্রাউজার দরকার, ডেটাবেজ সার্ভার দরকার, এইচটিটিপি সার্ভার দরকার। এগুলো সেট করে ফেলবেন।

এপাচি বা ইনিজিনেক্স যেটা আপনি চান কনফিগার করে ফেলেন। সব সেটাপ হয়ে গেলে আপনি ছোট খাটো পিএইচপি প্রোগ্রাম রান করে দেখুন। এবং সব ঠিক থাকলে আপনি লারাভেল শুরু করার জন্য প্রস্তুত।

স্টেপ থ্রিঃ লার্ন বেসিক

৩ নাম্বার স্টেপ এ আপনি বেসিক থেকে শেখা শুরু করুন। কারন স্টেপ টু তে আপনি অলরেডি সব সেটাপ করে ফেলেছেন। শেখা শুরু করবেন এইচটিএমএল দিয়ে। মনে রাখবেন এইচটিএমএল হচ্ছে পৃথিবীতে যত ওয়েব সাইট আছে, সেই সাইট গুলোর যে স্ট্রাকচার সেটা এইচটিএমএল দিয়ে তৈরি। প্রতিটা ওয়েব সাইট এ এইচটিএমএল আছে।

আপনি যদি পিএচপি ডেভেলপার হতে চান বা লারাভেল ডেভেলপার হতে চান, অবশ্যই আপনাকে এইচটিএমএল জানতে হবে। এর পর শিখবেন সিএসএস কা ক্যাসকেডিং স্টাইলশিট। সিএসএস মুলত স্টাইলিং এর জন্য শিখতে হবে।

সিএসই গ্রাজুয়েট চাকরী পায় না কেন?

এইচটিএমএল এবং সিএসএস শেখার পরে শিখতে হবে ডেভ টুলস নিয়ে। ডেভ টুলস হচ্ছে, আমাদের ব্রাউজার এর রাইট বাটনে ক্লিক করে ইনিস্প্যাক্ট করলে যে অপশন্স গুলো আসে সেগুলার বিস্তারিত। এটা ডেভেলপমেন্ট এ অনেক কাজ এ লাগে।

স্টেপ ফোরঃ গো এডভান্স

৪ নাম্বার স্টেপ এ আপনাদের প্রোগ্রামিং মডেল শিখতে হবে। অবজেক্ট ওরিয়েন্টেড প্রোগ্রামিং বা ওওপি সম্পর্কে ক্লিয়ার আইডিয়া থাকতে হবে। এর পর আসবে এমভিসি বা মডেল-ভিউ-কন্ট্রলার শিখতে হবে। কিভাবে প্রলজিক্যাল বিষয় গুলো কাজ করে, কিভাবে লারাভেল এ বিভিন্ন ফাংশন কাজ করে সেটা শিখতে হবে।

এর পর আসবে কম্পজার। এটাকে পিএইচপিতে প্যাকেজ ম্যানেজার বলা হয় অনেক সময়। এটা আমাদের পিএইচপি এর প্যাকেজ গুলো সহজে ম্যানেজ করে। এর পর জানা লাগবে কমান্ড লাইন ইন্টারফেইস বা সিএলআই। সিএলয়াই তে আমরা যেই কমান্ড লাইন শিখব তার কিছু কমান্ড আমাদের আগে থেকে জানা লাগবে।

স্টেপ ফাইভঃ লারাভেল স্টার্ট

৫ নাম্বার স্টেপ এ ফাইনালি লারাভেল শুরু করতে পারেন। লারাভেল এর ওয়েব সাইট এ গেলে দেখতে পারবেন কিভাবে লারাভেল ইনিস্টল করা যায়। প্রথমে কম্পোজার ইনিস্টল করবেন এবং তাদের গাইডলাইন ফলো করে লারাভেল ইনিস্টল করবেন।

মনে রাখবেন, লারাভেল ইনিস্টল করার জন্য কিছু রিকোয়ারমেন্ট আপনাকে ফুল-ফিল করতে হবে। যেমন পিএইচপি ভার্ষন, এক্সটেনশন। এগুলো লিস্ট সাইট এ দেয়া আছে। মনে রাখবেন, লারাভেল এর যে ডকুমেন্টেশন আছে সেটা খুবই ডেভেলপার ফ্রেন্ডলি। আপনি সহজে তাদের ডকুমেন্টেশন ফলো করে আগাতে পারবেন।

এভাবে যখন আপনি লারাভেল ইনিস্টল করে ফেলবেন তখন একটা ডিরেক্টরি ফাইল পাবেন। এই ডিরেক্টরি নিয়ে আপনাকে খুব ভালো করে জানতে হবে। এতে করে সামনের কাজ গুলো করতে খুবই সুভিদা হবে।

শুরুতে আপনি ছোট-খাটো একটা প্রজেক্ট করতে পারেন। আমার পরামর্শ হচ্ছে, ব্লগ সাইট দিয়ে শুরু করা। এটা সহজ এবং কম সময় লাগবে।

ফয়সাল ভাই এর অংশ এখানেই শেষ। আমি আবার মনে করিয়ে দেই, এটা একটা কুইক স্টার্ট গাইডলাইন। এখানে এডভান্স কিছুই আলোচনা করা হয় নি। যারা বেসিক জানেন তাদের জন্য এই গাইড খুব একটা উপকারে আসবে না।

ইন্টার্নশিপ প্রিপারেশন নিবেন যে ভাবে ও যখন থেকে

এই গাইডটি শুধু মাত্র একবারে বিগেনারদের জন্য। যারা কিছুই জানেন না কিন্তু লারাভেল শিখতে চান তাদের জন্য। কিভাবে লারাভেল ডেভেলপমেন্ট এ প্রফেশনাল হওয়া যায় আর কিভাবে ইনিশিয়ালি চাকরির জন্য প্রস্তুতি নিতে হবে সে ব্যাপারে আরও একটি কন্টেন্ট গালিব নোটস এর ব্লগ এবং ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশ করা হবে।

এবারে একটু বিজ্ঞাপনঃ সিএসই পড়ুয়া শিক্ষার্থী এবং অন্যান্য ইঞ্জিনিয়ারিং বা ক্রিয়েটিভ ডিপার্টমেন্ট এর শিক্ষার্থীদের জন্য ইন্টার্নশিপ খুবই গুরুত্বপুর্ন। কারন, ইন্টার্নশিপ এর মাধ্যমেই শিক্ষার্থীরা রিয়েল লাইফ প্রজেক্ট এ কাজ করার সুযোগ পায় এবং ইন্ডাস্ট্রির জন্য প্রস্তুত হতে পারে।

কোডিও নিয়মিত ভাবে সিএসই ডিপার্টমেন্ট এর ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য ইন্টার্নশিপ ট্রেইনিং প্রোগ্রাম আয়োজন করে থাকে। বিশেষ করে, লারাভেল ডেভেলপমেন্ট এর উপরে তাদের রেগুলার ট্রেইনিং আয়োজন করে থাকে।

আপনাদের মধ্য যারা ফাইনাল ইয়ারে বা ইন্টার্নশিপ এর সময়ে লারাভেল শিখতে চান, তারা চাইলে কোডিও এর সাথে যোগাযোগ করতে পারেন। চাইলে আমাদের সাথেও যোগাযোগ করতে পারেন। যেহেতু, ফয়সাল ভাই এর সাথে আমাদের ভালো সম্পর্ক তাই আমরা আপনাদের জন্য ইন্টার্নশিপ ট্রেইনিং ম্যানেজ করে দিতে পারব।

0Shares
Asadullah

Asadullah

মোঃ আসাদুল্লাহ গালিব, পেশায় একজন কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার এর শিক্ষার্থী আর নেশায় একজন কম্পিউটার বিজ্ঞানী। কম্পিউটার বিজ্ঞান এর অন্যতম ইমার্জিং এড়িয়া মেশিন লার্নিং, ড্ডিপ লার্নিং, বায়ো-ইনফরমেটিক্স নিয়ে কাজ করে থাকেন। এর বাইরে কম্পিউটার বিজ্ঞান, ক্যারিয়ার, ফ্রিল্যান্সিং এবং টেক উদ্যোগ নিয়ে লিখে থাকেন। তিনি নিজেও অনেক গুলো টেক ব্যাবসা এর সাথে সরাসরি জড়িত। গালিব নোটস মুলত ব্যাক্তিগত ব্লগ। বিল-গেটস এর ব্যাক্তিগত ওয়েব সাইট গেটস-নোটস এর নাম অনুসারে গালিব নোটস ব্লগের নাম-করন করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close